28 C
ঢাকা, বাংলাদেশ
বিকাল ৩:৫১ | ৯ই ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ খ্রিস্টাব্দ | ২৪শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ বঙ্গাব্দ
গ্রীন পেইজ
লাভার স্রোতে ক্ষুব্ধ হচ্ছে আগ্নেয়গিরি
আন্তর্জাতিক পরিবেশ আবহাওয়া ও পরিবেশ

লাভার স্রোতে ক্ষুব্ধ হচ্ছে আগ্নেয়গিরি

লাভার স্রোতে ক্ষুব্ধ হচ্ছে আগ্নেয়গিরি

অর্ধশতাব্দী পর ঘুম ভাঙ্গল আগ্নেয়গিরির। হঠাৎ জেগে উঠে লাভা উদগীরণ শুরু করেছে স্পেনের (Spain) ক্যানারি দ্বীপের কুম্বরে ভিয়েখা। সঙ্গে ভূমিকম্প (Tremors)। অগ্ন্যুৎপাতের দাপটে ভেঙেছে আশেপাশের প্রচুর ঘরবাড়ি। কুম্বরে ভিয়েখার রুদ্ররূপ দেখে ভয়ে এলাকা ছাড়ছেন হাজার হাজার মানুষ।

কিন্তু এসবের মাঝেও অকুতোভয় স্পেনের প্রধানমন্ত্রী পেদ্রো স্যাঞ্চেজ (Pedro Sanchez)। প্রাকৃতিক বিপর্যয়ের খবর পেয়ে পরিস্থিতি সরেজমিনে বুঝতে তিনি সোজা চলে গেলেন ঘটনাস্থলে। রাষ্ট্রসংঘের সাধারণ সভায় তাঁর যোগদানের কথা ছিল। সেখানেও গেলেন, তবে দেরিতে। রাষ্ট্রনেতা হিসেবে দেশের বিপদ মোকাবিলাকেই যে প্রাধান্য দেওয়াই কর্তব্য, তা ফের বোঝালেন স্প্যানিশ প্রধানমন্ত্রী।



কুড়ি-কুড়ি নয়, গুনে গুনে ৫০ বছর পার। শেষবার ১৯৭১ সালে জেগে উঠেছিল আগ্নেয়গিরি।তারপর ঘুম ভেঙে গিয়েছে কুম্বরে ভিয়েখার (Cumbre Vieja)। আর ঘুম ভেঙেই ভয়ংকর রূপ ধারণ করেছে স্পেনের ক্যানারি আইল্যান্ডের আগ্নেয়গিরি। আগুনরঙা হয়ে উঠেছে ক্যানারির আকাশ।

মাঝেমধ্যেই সশব্দে মাটি ফুঁড়ে বেরিয়ে আসছে লাভাস্রোত। আচমকা এই দৃশ্য দেখে আতঙ্কে, বিস্ময়ে আশেপাশের বাসিন্দারা। এমন ‘ভয়ংকর সুন্দর’ কে, কবেই বা দেখেছেন! কুম্বরে ভিয়েখার এই রূপদর্শন যাঁরা সহ্য করেছেন, তাঁদের কথা আলাদা। কিন্তু অধিকাংশ মানুষ দ্বীপ ছেড়ে পালিয়েছেন।

স্পেনের সরকারি পরিসংখ্যান বলছে, অন্তত ৫ হাজার মানুষ ইতিমধ্যেই পলাতক। চারটি গ্রাম খালি করা হয়েছে। পরিস্থিতি যেদিকে যাচ্ছে, তাতে বড়সড় বিপর্যয় এড়াতে ইতিমধ্যেই সেনা মোতায়েন করা হয়েছে।

স্পেনের ক্যানারি দ্বীপ সে দেশের অন্যতম আকর্ষণীয় পর্যটনকেন্দ্র। লা পালমা দ্বীপের অদূরে ক্যানারিতে ঘুরতে যান অনেকে। তাঁদের ঘোরানোর দায়িত্বে রয়েছেন জোনাস পেরেজ। হাতের তালুর মতো তিনি এলাকা চেনেন।



এই জোনাসই বলছেন, ”এখনও আমি কম্পন টের পাচ্ছি। অগ্ন্যুৎপাতের এত শব্দ যে মনে হচ্ছে, একসঙ্গে ২০ টি যুদ্ধবিমান উড়ছে। আমার গোটা জীবনে এমন কখনও দেখিনি।” পরিসংখ্যান বলছে, কুম্বরে ভিয়েখা জেগে ওঠার পর অন্তত ২২ হাজার বার কম্পন অনুভূত হয়েছে।

পরিস্থিতি দেখতে সেখানে ছুটে গিয়েছেন স্পেনের প্রধানমন্ত্রী পেদ্রো স্যাঞ্চেজ। তিনি জানিয়েছেন, বিপর্যয়ের খবর পেয়েই ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। সব পরিকল্পনামাফিক চলছে।

লা পালমার সব বাসিন্দার সুরক্ষাকে অগ্রাধিকার দেওয়া হচ্ছে। চিন্তার কিছু নেই বলেও আশ্বস্ত করেছেন প্রধানমন্ত্রী। ক্যানারি দ্বীপের অগ্ন্যুৎপাতের জেরে রাষ্ট্রসংঘের অধিবেশনে যেতে তাঁর খানিকক্ষণ দেরি হল। আন্তর্জাতিক মঞ্চে দেরিতে গেলেও দেশের কর্তব্য পালনের জন্য তাঁকে ধন্য ধন্যই করেছেন সকলে।

“Green Page” কে সহযোগিতার আহ্বান

সম্পর্কিত পোস্ট

Green Page | Only One Environment News Portal in Bangladesh
Bangladeshi News, International News, Environmental News, Bangla News, Latest News, Special News, Sports News, All Bangladesh Local News and Every Situation of the world are available in this Bangla News Website.

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন, তবে আপনি ইচ্ছা করলেই স্কিপ করতে পারেন। গ্রহন বিস্তারিত