31 C
ঢাকা, বাংলাদেশ
রাত ১:২৪ | ১৮ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ খ্রিস্টাব্দ | ৩রা ভাদ্র, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ বঙ্গাব্দ
গ্রীন পেইজ
জলবায়ু সংকট মোকাবিলায় আন্তর্জাতিক সহায়তার আহ্বান পররাষ্ট্রমন্ত্রীর
জলবায়ু

জলবায়ু সংকট মোকাবিলায় আন্তর্জাতিক সহায়তার আহ্বান পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

জলবায়ু সংকট মোকাবিলায় আন্তর্জাতিক সহায়তার আহ্বান পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন বাংলাদেশের মতো জলবায়ু ঝুঁকিপূর্ণ দেশের জন্য আরও আন্তর্জাতিক অংশীদারত্ব ও সহায়তার জন্য বিশ্বনেতাদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। জার্মানির মিউনিখ শহরে ৩ দিনব্যাপী ৫৮তম আন্তর্জাতিক নিরাপত্তা সম্মেলনের জলবায়ু সংকট মোকাবিলার প্যানেল আলোচনায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী বিষয়টি তুলে ধরেন।



পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, বর্তমানে জলবায়ু পরিবর্তন বিশ্বে নিরাপত্তা হুমকি তৈরি করেছে। বিশ্বের বিভিন্ন অংশে জলবায়ুর এই পরিবর্তনের সম্ভাব্য পরিণতি আমরা দেখতে পারছি বলে তিনি মন্তব্য করেন।

তিনি আরো বলেন, শিল্পোন্নত দেশগুলো জলবায়ুর জন্য ক্ষতিকারক অধিক কার্বন ডাই–অক্সাইড নির্গমন করে বৈশ্বিক জলবায়ু দূষণ করছে।

জলবায়ু সংকট মোকাবিলা শীর্ষক প্যানেল আলোচনায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের মতো জলবায়ু ঝুঁকিপূর্ণ দেশের জন্য অর্থায়ন ও প্রযুক্তি নিশ্চিত করতে আন্তর্জাতিক অংশীদারত্ব গঠনে সহায়তা প্রয়োজন। এ বিষয়ে সহায়তা করার জন্য তিনি বিশ্বনেতাদের প্রতি প্রতি আহ্বান জানান।

জলবায়ু সংকট মোকাবিলাবিষয়ক এ প্যানেলে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে ছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্টের জলবায়ুবিষয়ক উপদেষ্টা জন কেরি, জার্মান ফেডারেল ইকোনমিক অ্যাফেয়ার্স অ্যান্ড ক্লাইমেট অ্যাকশনের স্টেট সেক্রেটারি ফ্রান্সসিকা ব্রান্টনার এবং ইউএইর শিল্প ও উন্নত প্রযুক্তিমন্ত্রী সুলতান আহমেদ আল জাবের। আলোচনায় বক্তারা জলবায়ু পরিবর্তনকে পৃথিবী ও মানবকুলের অস্তিত্বের হুমকি হিসেবে চিহ্নিত করেন।

জলবায়ু সংকট মোকাবিলা শীর্ষক প্যানেল অধিবেশনে পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোমেন প্যানেলে তাঁর মার্কিন এবং জার্মান সহযোগীদের কাছে প্রশ্ন করেন, ইউক্রেনকে ঘিরে উত্তেজনা বৃদ্ধি জলবায়ুর ওপর বিরূপ প্রভাব ফেলবে কি না? তিনি করোনা মহামারি থেকে বেরিয়ে আসার সম্ভাব্য উপায় নিয়ে এবং বিশ্বজুড়ে টিকার সমতা নিশ্চিত করতে আহ্বান জানান।

সম্মেলনে জার্মানির চ্যান্সেলর ওলাফ শলৎজ ইউক্রেন নিয়ে সৃষ্ট পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে আহ্বান জানান। তিনি বলেন, ‘এ মুহূর্তে যুদ্ধ নয়, বরং বিশ্বজুড়ে করোনা মহামারি থেকে পরিত্রাণ ও জলবায়ু পরিস্থিতি মোকাবিলার জন্য আমাদের একযোগে কাজ করা বেশি জরুরি।’ কূটনৈতিক প্রচেষ্টার মাধ্যমে ইউক্রেন সংকট সমাধান সম্ভব বলে তিনি মন্তব্য করেন।



১৯৬৩ সাল থেকে জার্মানি সরকারের উদ্যোগে মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলন একটি উন্মুক্ত ফোরাম। বিশ্বের নানা দেশের প্রতিনিধিরা দ্বিপক্ষীয় ও বহুপক্ষীয় নানা বিষয়ে মতবিনিময় ও আলোচনা করেন।

সম্মেলনে আঞ্চলিক ও আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে নিরাপত্তার বিষয়ে বিভিন্ন প্রস্তাব তুলে ধরা হয়। বিভিন্ন রাষ্ট্রের নেতা ও রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব ছাড়াও এই সম্মেলনে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক, বাণিজ্য ও অর্থনীতিবিষয়ক বিশেষজ্ঞ, পরিবেশবিদ, মানবাধিকারকর্মী ও নাগরিক সমাজের প্রতিনিধিরা অংশ নেন।

এবারের এই সম্মেলনে অংশ নিয়েছেন বিশ্বের ৪০টি দেশের রাষ্ট্রপ্রধান, মন্ত্রীসহ সমাজের বিভিন্ন স্তরের প্রতিনিধি। সম্মেলনের সভাপতি ভলফগ্যাং ইসিঙ্গার বলেছেন, ‘সংলাপের মাধ্যমে শান্তি ও নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠার যে প্রয়াস আমরা দীর্ঘদিন আগে শুরু করেছিলাম, তার প্রয়োজন এখনো শেষ হয়ে যায়নি।’

সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন, সশস্ত্র বাহিনী বিভাগের প্রিন্সিপাল স্টাফ অফিসার লেফটেন্যান্ট জেনারেল ওয়াকার-উজ-জামান ও জার্মানিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মো. মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া।

“Green Page” কে সহযোগিতার আহ্বান

সম্পর্কিত পোস্ট

Green Page | Only One Environment News Portal in Bangladesh
Bangladeshi News, International News, Environmental News, Bangla News, Latest News, Special News, Sports News, All Bangladesh Local News and Every Situation of the world are available in this Bangla News Website.

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন, তবে আপনি ইচ্ছা করলেই স্কিপ করতে পারেন। গ্রহন বিস্তারিত