34 C
ঢাকা, বাংলাদেশ
সন্ধ্যা ৬:০৫ | ৮ই আগস্ট, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | ২৪শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
গ্রীন পেইজ
চীন Covid – 19 coronavirus এ প্রকৃত মৃতের সংখ্যা ঘোপন রেখে বিশ্ব অর্থনীতিতে প্রভাব বিস্তার করতে চাচ্ছে
আশফাকুর রহমান নিলয় পরিবেশগত অর্থনীতি

চীন Covid – 19 coronavirus এ প্রকৃত মৃতের সংখ্যা গোপন রেখে বিশ্ব অর্থনীতিতে প্রভাব বিস্তার করতে চাচ্ছে – যুক্তরাজ্য

চীন Covid – 19 coronavirus এ প্রকৃত মৃতের সংখ্যা গোপন রেখে বিশ্ব অর্থনীতিতে প্রভাব বিস্তার করতে চাচ্ছে – যুক্তরাজ্য

– আশফাকুর রহমান নিলয়

যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের সরকার বলেছে যে, তারা চীনের করোনাভাইরাসের প্রতিরোধের এমন ব্যবস্থাপনায় ক্রোদ্ধ। রবিবারে একজন ব্রিটিশ কর্মকর্তা জানান যে, কোভিড-১৯ সংকট শেষ হয়ে যাওয়ার পর বেইজিংকে তার দেশে এ ভাইরাসে প্রকৃত মৃত্যুর সংখ্যা ‘পূণ:গণনা’ করার মূখোমুখি হতে হবে।

রবিবারে যুক্তরাজ্য হতে প্রকাশিত ‘দ্য মেইল’ জানিয়েছে, যুক্তরাজ্যের সরকারী কর্মকর্তারা অভিযোগ করছে যে, চীন তার নিজ দেশের সীমান্তগুলোতে করোনাভাইরাসের তীব্রতা বিষয়ে সঠিক তথ্য না দিয়ে বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাস ছড়িয়েছে।

পত্রিকাটি বলছে, জনসনকে বিজ্ঞানীরা জানিয়েছে যে, চীন করোনাভাইরাসের সংক্রমণে প্রকৃত আক্রান্তের সংখ্যা ১৫ থেকে ৪০ ভাগ কমিয়ে রির্পোট করছে।

২৯ শে মার্চে যুক্তরাজ্যের মন্ত্রীসভার সদস্য মন্ত্রী মাইকেল গোভ বিবিসিকে জানান, তিনি চীনের প্রকাশিত সংখ্যা নিয়ে সংশয়ে রয়েছেন। তিনি আরও জানান, “চীনে প্রথম করোনাভাইরাসের সংক্রমণের ঘটনাটি হয়েছিল গত বছরের ডিসেম্বরে, কিন্তু এই সংক্রমণের রির্পোটিং এর ক্ষেত্রে চীনের গণণা প্রদ্বতি, সংক্রমণের প্রকৃতি ও সংক্রমণের ব্যপকতা বিষয়টি পরিস্কার ছিল না।

চীন Covid – 19 coronavirus এ প্রকৃত মৃতের সংখ্যা ঘোপন রেখে বিশ্ব অর্থনীতিতে প্রভাব বিস্তার করতে চাচ্ছে
চীন Covid – 19 coronavirus এ প্রকৃত মৃতের সংখ্যা ঘোপন রেখে বিশ্ব অর্থনীতিতে প্রভাব বিস্তার করতে চাচ্ছে

চীনের সরকার করোনাভাইরাসে যখন শুধুমাত্র ৩,৩০৪ জনের মৃত্যুর খবর রির্পোটিং করেছিল। তখন রেডিও ফ্রি এশিয়ার তথ্যানুসারে, উহানের অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া সম্পন্ন হয় এমন নিদিষ্ট স্থানগুলোতে আনুমানিক ৪২,০০০ লাশের অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া সম্পন্ন করা হয়েছে।

যুক্তরাজ্যের কর্মকর্তারা ধারণা করেছে যে, চীন নিজ দেশে সফলতার সাথে এই ভাইরাসের সংক্রমণ রোধে সক্ষমতার রির্পোটিং করছে এবং এর মাধ্যমে আক্রান্ত অন্যান্য দেশকে এই ভাইরাস রুখতে সাহায্য করার প্রস্তাব দিয়ে তাদের অর্থনৈতিক শক্তি প্রসার করার মতলব আঁটছে।

সংবাদপত্রটি যুক্তরাজ্যের ৩ কর্মকর্তার কথা উল্লেখ করেছে, যাদের মাধ্যমে জনসন সরকারের চীনের প্রতি প্রকৃত ক্রোধের বহি:প্রকাশ পেয়েছে।



একজন বলেন, “এর পরে এটি কূটনৈতিক টেবিলে আসতে চলেছে।”

নামপ্রকাশে অনিচ্ছুক দ্বিতীয় এক কর্মকর্তা বলেন, “যখন এ সংকট শেষ হয়ে যাবে তখন এর জন্য চীনকে কৈফিয়ত দিতে হবে। “তৃতীয় জন বলেন, “ক্রোধ সবসময় উপরে অবস্থান করে।”

সংবাদপত্রটি আরও জানায় যে, জনসনের সরকার এতটাই ক্রোদ্ধ ছিল যে, চীন যেভাবে এই সংকটের মোকাবেলা করছে তাতে প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন যুক্তরাজ্যে 5G নেটওয়ার্কের বিকাশের জন্য চীনা কোম্পনী হুয়াওয়েকে যে অনুমতি দিয়ে ছিল – তা বাতিল করতে পারেন।

হুয়াওয়েকে যুক্তরাষ্ট্রে ওয়্যারলেস অবকাঠামো উন্নয়নের কার্যক্রম সীমিত করায় জনসন তার মিত্র রাষ্ট্রপতি ডোনাল্ড ট্রাম্পের ওপর ক্রোদ্ধ ছিলেন।

হুয়াওয়েকে যুক্তরাজ্যের ওয়্যারলেস অবকাঠামো উন্নয়নে নিয়োজিত করায় ট্রাম্প প্রশাসন ক্রোদ্ধ ছিল। গত মাসে জনসনের নিকট ফোনকলের মাধ্যমে ট্রাম্প তাঁর অসন্তুষ্টি প্রকাশ করেছিলেন বলে জানা গেছে।

জনসনের কনজারভেটিভ পার্টির নীতিনির্ধারকদেরকেও এই সিদ্ধান্ত ক্রোধিত করেীছল।

রবিবার দ্য মেইলকে একজন কেবিনেট মন্ত্রী বলেন, “আমরা চীনের রাষ্ট্রীয় গোপনীয়তার আকাঙ্খাকে বিশ্বের অর্থনীতিকে ক্ষতিগ্রস্থ করার বিষয়ট মেনে নিতে এবং বরদাশ্ত করতে পারি না এবং এরপর তারা অবস্থা স্বাভাবিক হলে এমন ভাব দেখাবে যে তেমন কিছুই হয়নি।”

তিনি আরও জানান, “আমরা হুয়াওয়ের মত প্রতিষ্ঠানকে শুধু যে আমাদের অর্থনীতিতে অনুমতি দিচ্ছি তা নয়, আমাদের কাঠামোতে উহা খুবই গুরুত্বপূর্ণ জায়গা। এই বিষয়টি খুবই জরুরীভাবে পূর্:বিবেচনা করা উচিৎ, এই কারনে যে রাষ্ট্রীয় কৌশলগত এমন গুরুত্বপূর্ণ অবকামো যা কিনা চীনা একটি কোম্পাণীর উপর নির্ভরশীল “

জনসন যুক্তরাজ্যের প্রতিটি পরিবারকে চিঠি লিখেছেন এবং তাদেরকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার বিধিনিষেধ সমূহ মেনে চলার আহ্বান জানিয়েছেন।

চিঠিগুলো কিছুদিনের মধ্যেই ব্রিটেনের মানুষের কাছে পৌঁছে যাবে বলে আশা করা হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী যিনি এই সপ্তাহে করোনাভাইরাস পরীক্ষায় পজিটিভ ধরা পড়েছেন, তিনি বলেছেন এটি ভাল হবার আগেই আরও খারাপ হতে পারে।
তিনি আরও জানান, “কিন্তু আমরা সঠিক প্রস্তুতি নিয়েছি এবং আমরা সবাই বিধিনিষেধ মেনে চলব, কমসংখ্যক মানুষ মৃত্যুবরণ করবে এবং আমরা খুবই দ্রুত স্বাভাবিক জীবনে ফিরে যাব।”

প্রধানমন্ত্রী যুক্তরাজ্যে গত সপ্তাহে জাতীয়ভাবে লকডাইন প্রয়োগ করেন। মানুষদেরকে জরুরী প্রয়োজন ছাড়া ঘরের বাহিরে বের হতে নিষেধ করেন এবং যুক্তরাজ্যের পুলিশদেরকে যারা আইন লঙ্ঘন করবে তাদেরকে জরিমানা করার অনুমতি প্রদান করেন।

Source: BUSINESS INSIDER

সম্পর্কিত পোস্ট

Green Page | Only One Environment News Portal in Bangladesh
Bangladeshi News, International News, Environmental News, Bangla News, Latest News, Special News, Sports News, All Bangladesh Local News and Every Situation of the world are available in this Bangla News Website.

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন, তবে আপনি ইচ্ছা করলেই স্কিপ করতে পারেন। গ্রহন বিস্তারিত